Latest: টিকটকের অভাব মেটাবে ইউটিউবের ১৫ সেকেন্ডের শর্টস, লঞ্চ হল ভারতে – Kolkata24x7

Latest: টিকটকের অভাব মেটাবে ইউটিউবের ১৫ সেকেন্ডের শর্টস, লঞ্চ হল ভারতে – Kolkata24x7

নয়াদিল্লি : জনপ্রিয় টিকটক অ্যাপ ভারতে নিষিদ্ধ। টিকটক প্রেমীরা স্বভাবতই বেশ হতাশ। টিকটক ব্যান করার পরে, বেশ কয়েকটি তথ্য প্রযুক্তি সংস্থা এর বিকল্প বাজারে আনতে চেয়েছিল। তবে খুব একটা সাফল্য এখনও পায়নি। সেই ঘাটতি পূরণ করতে বাজারে এল ইউটিউবের শর্টস।

১৫ সেকেন্ডের সময়ের মেয়াদে এখানে বানানো যাবে নিজেদের ভিডিও। জানাচ্ছে ইউটিউব। এই প্ল্যাটফর্মের নিজস্ব ভিউয়ারশিপ রয়েছে। বেশ জনপ্রিয় এই অ্যাপ। তাই সংস্থা মনে করছে জনপ্রিয় হবে শর্টসও। সোমবারই ভারতে এটিকে লঞ্চ করল ইউটিউব। দীর্ঘ প্রতীক্ষার পর শর্টসকে বাজারে আনল ইউটিউব। ১৫ সেকেন্ড বা তার কম সময়ে বানানো যাবে ভিডিও। ভারতীয় গ্রাহকরা এটি ব্যবহার করতে পারবেন।

এখানে একটি ভিডিও বানানো যাবে, অথবা একাধিক ছোট ছোট ভিডিও করে তা জুড়ে দেওয়া যাবে। বেশ কিছু ক্রিয়েটার টুলস রাখা হয়েছে শর্টসে, যাতে ব্যবহারকারীদের সুবিধা হয়। এছাড়াও ভিডিও গতি নিয়ন্ত্রণ করতে পারবেন ব্যবহারকারীরা, যোগ করতে পারবেন পছন্দমত গান। ইউটিউব লাইব্রেরি থেকেই এই গানগুলি পাওয়া যাবে।

নিজেদের অফিশিয়াল ব্লগে ইউটিউব জানিয়েছে শর্টস লঞ্চ করতে পেরে খুব খুশি ইউটিউব। মোবাইল ফোন ব্যবহার করেই খুব সহজেই ভিডিও বানানো যাবে।

টিকটকের মতোই বেশ কয়েকটি ফিচারস রয়েছে এখানে। টাইমার, মাল্টি সেগমেন্ট ক্যামেরা, কাউন্টডাউন, স্পিডের মতো ফিচারস এখানেও মিলবে। এটা কোনও নির্দিষ্ট অ্যাপ নয়, অ্যান্ড্রয়েড ফোনে ইউটিউবের মধ্যেই পাওয়া যাবে শর্টস।

এর আগে, টিকটক অ্যাপ্লিকেশনের বিকল্প তৈরি করে ফেলে ইনস্টাগ্রাম। ইনস্টাগ্রাম রিলস নামের এই অ্যাপটিতে ১৫ সেকেন্ডের ভিডিও বানানো যাবে বলে জানানো হয়। ইনস্টাগ্রাম জুলাই মাসে এই অ্যাপ্লিকেশনের আনুষ্ঠানিক ঘোষণা করে। ইনস্টাগ্রাম রিলসের ফিচার টেস্ট চালু করা হয় জুলাই মাস থেকে। তারপরেই লঞ্চ করা হয়েছে এই অ্যাপ্লিকেশন। এই অ্যাপে রেকর্ড, এডিট ও শেয়ার করা যাবে ভিডিও। রিলস ফিচারটি টিকটকের থেকে বেশ কিছুটা আলাদা। এটি একটি অ্যাপ্লিকেশন, যা ইনস্টাগ্রামের মধ্যেই থাকবে বলে জানতে পারা যায়।

পপ্রশ্ন অনেক: নবম পর্ব

Tree-bute: আমফানের তাণ্ডবের পর কলকাতা শহরে শতাধিক গাছ বাঁচাল যারা

Source link

Follow and like us:
0
20

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here