Latest: doctor dies by suicide: কলকাতায় ফের জুনিয়র ডাক্তার আত্মঘাতী – kolkata: junior doctor dies by suicide at chittaranjan national medical college hostel

Latest: doctor dies by suicide: কলকাতায় ফের জুনিয়র ডাক্তার আত্মঘাতী – kolkata: junior doctor dies by suicide at chittaranjan national medical college hostel

এই সময় ডিজিটাল ডেস্ক: কলকাতায় ফের এক জুনিয়র চিকিত্‍‌সকের অস্বাভাবিক মৃত্যু হয়েছে। বুধবার চিত্তরঞ্জন ন্যাশনাল মেডিক্যাল কলেজের হস্টেল থেকে দিব্যেন্দু সর্দার নামে ওই মেডিক্যাল পড়ুয়ার মৃতদেহ উদ্ধার হয়। তাঁর বাড়ি দক্ষিণ ২৪ পরগনার গোসাবায়। দেহটি গলায় ফাঁস লাগানো অবস্থায় ঝুলছিল।

প্রাথমিক তদন্তের পর পুলিশের মনে হয়েছে ওই মেডিক্যাল ছাত্র আত্মহত্যাই করেছেন। তবে, আত্মহত্যার কারণ সম্পর্কে পুলিশ নিশ্চিত করে কিছু বলতে পারেনি। প্রাথমিক তদন্তের সময় সহপাঠীদের সঙ্গে কথা বলে পুলিশের মনে হয়েছে, মানসিক অবসাদে ভুগছিলেন ওই ছাত্র। বেনিয়াপুকুর থানার পুলিশ এই ঘটনার তদন্ত করছে।

পুলিশের কাছে ওই জুনিয়র ডাক্তারের সহপাঠীরা জানিয়েছেন, বেশ কিছু দিন ধরে অবসাদে ভুগছিলেন ফাইনাল বর্ষের ছাত্র দিব্যেন্দু সর্দার। তাঁর অস্বাভাবিক মৃত্যুর জন্য এই অবসাদকেই দায়ী করছেন সহপাঠীরা। ৫৯এ/ডি বেনিয়াপুকুর রোডের ন্যাশনাল মেডিক্যাল কলেজের মেইন হস্টেল। সেই হস্টেলের পাঁচতলার একটি ঘরে থাকতেন দিব্যেন্দু। বুধবার সকালে ঘরের দরজা ভেতর থেকে বন্ধ দেখে সন্দেহ হয় হস্টেলের কর্মচারীদের। তাঁরা দিব্যেন্দুর বন্ধুদের খবর দেন। ডাকাডাকি করেও কোনও সাড়া মেলেনি। অবশেষে খবর দেওয়া হয় পুলিশে। দরজা ভেঙে দেখা যায় সিলিং থেকে ঝুলছে দিব্যেন্দুর দেহ।

পুলিশ জানিয়েছে, বিছানার চাদর দিয়ে গলায় ফাঁস দেন এমবিবিএসের ফাইনাল ইয়ারের এই ছাত্র। পুলিশ জানতে পারে, বছর চব্বিশের দিব্যেন্দুর এক আত্মীয় সম্প্রতি মারা যান। সে ঘটনা তাঁর মনে গভীর প্রভাব ফেলেছিল। গোসাবায় তাঁর বাড়িতে খবর পাঠানো হয়েছে। মৃত্যুর কারণ সম্পর্কে নিশ্চিত হতে পরিবার পরিজনদের সঙ্গেও কথা বলবে পুলিশ।

আরও পড়ুন: কোভিডে মৃত্যু ৩৮২ চিকিত্‍‌সকের, কেন্দ্রের ‘উদাসীনতা’য় ক্ষুব্ধ IMA-র চিঠি

এর আগেও শহরে এক জুনিয়র ডাক্তারের ঝুলন্ত দেহ উদ্ধার করে পুলিশ। মানসী মণ্ডল নামে ওই জুনিয়র চিকিত্‍সক আর আহমেদ ডেন্টাল কলেজের দ্বিতীয় বর্ষের পিজিটি ছাত্রী ছিলেন। লেডিস হস্টেলের একটি বন্ধ ঘরের দরজা ভেঙে আত্মঘাতী জুনিয়র চিকিত্‍সকের ঝুলন্ত দেহ উদ্ধার করেছিল এন্টালি থানার পুলিশ। ঘরের ভিতর থেকে একটি সুইসাইড নোটও উদ্ধার হয়।

আরও পড়ুন: নিতিন গডকরির করোনা, গেলেন আইসোলেশনে

পুরুলিয়ার বাসিন্দা মানসী নর্থ বেঙ্গল ডেন্টাল কলেজের ছাত্রী ছিলেন। ম্যাক্সিলোফেসিয়াল সার্জারির জন্য স্নাতকোত্তর কোর্স করতে আর আহমেদ ডেন্টাল কলেজে সুযোগ পান। এখানেই পোস্ট গ্রাজুয়েট ট্রেনি, পিজিটি হিসেবে দ্বিতীয় বর্ষে পড়াশোনা করছিলেন। পুলিশ জানায়, মানসী মণ্ডল মানসিক অবসাদে ভুগছিলেন। তার পরিণতি আত্মহত্যা।

আপনি বা আপনার পরিচিত কেউ মানসিক অবসাদে ভুগছেন? নির্দ্বিধায় ফোন করে, কথা বলুন। নীচের যে কোনও হেল্পলাইনে ফোন করতে পারেন।

আসরা (মুম্বই) 022-27546669
স্নেহা (চেন্নাই) 044-24640050
সুমাইত্রী (দিল্লি) 011-23389090
কুজ (গোয়া) 0832- 2252525
জীবন (জামশেদপুর) ) 065-76453841
প্রতীক্ষা (কোচি) 048-42448830
মৈত্রী (কোচি) 0484-2540530
রোশনি (হায়দরাবাদ) 040-66202000
লাইফলাইন (কলকাতা) 033-64643267

এই সময় ডিজিটাল এখন টেলিগ্রামেও। সাবস্ক্রাইব করুন, থাকুন সবসময় আপডেটেড। জাস্ট এখানে ক্লিক করুন।

Source link

Follow and like us:
0
20

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here